Friday August 23, 2019

এটিএম জালিয়াতি: ইউক্রেনের ৬ নাগরিক রিমান্ডে

1 এটিএম জালিয়াতি: ইউক্রেনের ৬ নাগরিক রিমান্ডে

ডিজিটাল জালিয়াতির মাধ্যমে এটিএম বুথের সিস্টেম হ্যাকিং করে টাকা তোলার মামলায় গ্রেপ্তার ছয় বিদেশি নাগরিকের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। পুলিশের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আজ সোমবার এই আদেশ দেন। আজ সোমবার দুপুরে ঢাকা মহানগর হাকিম ধীমান চন্দ্র মণ্ডল এ রিমান্ডের আদেশ দেন। এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা খিলগাঁও জোনাল টিমের পুলিশ পরিদর্শক মো. আরিফুর রহমান ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় আসামিদের আদালতে হাজির করে আট দিনের রিমান্ড আবেদন করেন।

গত শনিবার রাজধানীর খিলগাঁও এলাকায় ডাচ-বাংলা ব্যাংক লিমিটেডের একটি বুথ থেকে টাকা তোলার সময় হাতেনাতে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, পান্থপথের একটি আবাসিক হোটেল থেকে আরো পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রিমান্ডে যাওয়া আসামিরা হলেন- ভ্যালেনটাইন (পাসপোর্ট নম্বর ইওয়াই ০৫১৫৬২), ওলেগ (পাসপোর্ট নম্বর ইএক্স ০৮৯৯৬৩), ড্যানিশ (পাসপোর্ট নম্বর এফএল ০১৯৮৩৪), নাজেরি (পাসপোর্ট নম্বর এফটি ৫০০৫০১), সার্গি (পাসপোর্ট নম্বর এফএইচ ৪২৪৩৯৪) ও ভোলোবিহাইন (পাসপোর্ট এফটি ৩৭৯৯৮৩)। তাদের পক্ষে কোনো আইনজীবী আদালতে উপস্থিত ছিলেন না। ডিবি পুলিশ জানায়, চক্রের দুই সদস্য মুখে মাস্ক ও মাথায় ক্যাপ ব্যবহার করে খিলগাঁওয়ের ওই এটিএম বুথে ঢোকেন। বুথে বেশি সময় নেওয়ার কারণে নিরাপত্তারক্ষী আশপাশের লোকজন ডেকে জড়ো করেন। বিষয়টি টের পেয়ে দুই বিদেশি নাগরিক পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে উপস্থিত জনতা একজনকে হাতেনাতে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পান্থপথের একটি হোটেল থেকে বাকিদের গ্রেপ্তার করা হয়। ডিবির অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) শাহিদুর রহমান রিপন সাংবাদিকদের বলেন, চক্রটি প্রথমে বাড্ডা এলাকার ডাচ বাংলা ব্যাংকের ফাস্ট ট্র্যাক থেকে ২ লাখ টাকা তোলে নিয়ে যায়। বিষয়টি টের পেয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ আমাদের জানায় এবং অভিযোগের পর পরই তদন্তে নামে ডিবি। তিনি জানান, ইতোপূর্বে বিভিন্ন সময় এটিএম বুথ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেওয়া চক্রটি কার্ড ক্লোন করে টাকা চুরি করত। তবে এ চক্রটি অভিনব কায়দায় মেশিনে কার্ড দিয়ে কোনো পিন নম্বর ছাড়াই টাকা উত্তোলন করে।

Filed in: অর্থ-বানিজ্য